About Us

My Blog About Us

আল-মেরাজ আল-মুমেনীন ফাউন্ডেশন
রেজীঃ৬২২৯ স্থাপিত ঃ২০১৮ সাল
স্হানঃ- ইব্রাহিমপুর মৌজা,পোঃবাশইল,থানাঃকুশমন্ডী,জেলাঃদঃ দিনাজপুর,পঃবঃ,ভারত
এর প্রস্তাবিতঃ-
আল-জামেয়াহ্ মেহের উন্ নিসা (মেয়েদের হোস্টেল)
আস্সালামু আলাইকুম,
প্রিয়- দ্বীনদার ইমানদার ভাই ও বোনেরা,
আমরা সকলেই অবগত আছি যে,সৃস্টি কর্তা মহান আল্লাহ রাব্বুল আলামীন,একমাত্র তাঁরই এবাদত করার জন্য মানব ও জ্বীন জাতিকে পৃথিবীতে পাঠিয়েছেন ।আমরা বর্তমান যুগে নিত্যনতুন আবিস্কৃত জিনিস দেখে আল্লাহর শুকরিয়া আদায় করা ছেড়ে দুনিয়ার মায়ায় ডুবে আছি।আমরা পৃথিবীর সুখ শান্তি উপভোগ করার আশায়,স্বরোজগার এর কথা ভাবি, কি করলে ভবিষ্যত জীবন সুখের হতে পারে ? অনেক নামি দামী ডিগ্রি অর্জন করতে জীবনের অনেকটা সময় অতিবাহিত করি।বহু অর্থ ও সময় ব্যয় করেও,অসংখ্য যুবক/যুবতীরা নিজেকে বেকার ভাবতে বাধ্য হয়।কারণ তারা বিদ্যান হয়েছে,কর্ম দক্খতা অর্জন করতে পারেনি।তাই অনেক চিন্তাভাবনা করার পর,অবশেষে এক অভিনব পদ্ধতিতে সেবা মুলক কাজ করার,উৎসাহ ও উদ্যিপনা নিয়ে,মাদ্রাসা জগতে আলোড়ন সৃস্টি কারক প্রতিস্ঠান তৈরী করতে,অক্লান্ত পরিশ্রম চলছে।নিম্নে বর্নীত পদ্ধতিতে আগামী নতুন প্রজন্মকে প্রতিষ্ঠিত করার অঙ্গীকার করা হয়েছে।আমাদের আশা এই যে,অদূর ভবিষ্যতে সমাজের বেকারত্ব অনেক দূরে চলে যাবে।উক্ত মাদ্রাসায়,বিদ্যাশিক্খা ও কর্মশিক্খা দুটিকেই সুক্ষ ভাবে,অভিনব রুপে রুপান্তরিত করার চেস্টা করা হয়েছে।এই নিয়মে বিদ্যা-বুদ্ধি অর্জন করাতে পারলে ,ছাত্রীদের পার্থীব ও পরলৌকিক জীবনের চলার পথ সহজ হয়ে যাবে।শিক্ষার্থীরা শিক্ষা অর্জনাবস্হায় স্বরোজগার ও স্বনির্ভর হয়ে উঠতে সক্ষম হবে। ইনশাআল্লাহ্। ফাউন্ডেশন কমিটি আপনাদের পবিত্র দো’আ প্রার্থী ।

আসুন এক নজরে দেখেনেইঃ-

“ফাউন্ডেশন এর অভিনবত্ব”
ছাত্রীদের বয়স ভর্ত্তির সময়ঃ- ৮ থেকে ১২ বছর,
১/হাফিজাহ্ আল কোরআন,কমপ্লিট কোর্স এর সময় ৪ বছর।
২/জেনেরাল শিক্ষা ক্লাস- ২য়,৩য়,৪র্থ,৫ম থেকে ৬ষ্ট,৭ম,৮ম,৯ম পর্যন্ত (দ্বাদশ শ্রেনী প্রস্তাবিত)।
৩/টেইলার,মোবাইল/কম্পিউটার টেকনিশিয়ানঃ-
টেইলার ( ৪০ প্রকার পোষাক এর কাপড় কাটতে ও সেলাই করতে পারা।
মোবাইল / কম্পিউটার এর সমস্ত রিপেয়ার এর কাজ করতে পারা।
৪/সঠিক ইসলামী জীবনযাপন এর অভ্যস্ত করা।
৫/দ্বীনের আলোচনা করতে পারা(মহিলা জালসার বক্তা)।
৪ বছরের বিদ্যা শিক্ষা ও কর্ম শিক্ষা’র ফলাফল যা হবে ।
(ক)৩০ পারা কোরআন পাকের হাফিজাহ্ আল-কোরআন (শুদ্ধ উচ্চারণ সহ)।
(খ)৬ষ্ট/৭ম/৮ম/৯ম পর্যন্ত জেনারেল শিক্ষা (পঃবঃশিঃপর্ষদ সিলেবাস) পাবে।
(গ)টেইলার (কাটিং&স্টিচিং) নতুন ও পুরাতন ডিজাইন এর ৪০ প্রকার কাপড় কাটা ও সেলাই করতে পারবে।
(ঘ)মোবাইল/ কম্পিউটার টেকনিশিয়ান (মোবাইল/কম্পিউটার রিপেয়ারিং এর সুদক্ষ্যা কারিগর) তৈরী হবে।
(ঙ)দ্বীনের আলোচনা সভায় আলোচনা কারী “মহিলা বক্তা”(কোরআন আল-করিম এর ৫০০ আয়াতের তাফসির, ৫০০ হাদিসের বিশারদ ও ৫০০ মাসআলা-মাসায়েল এর হাফিজাহ্ তৈরী হবে।ইনশাআল্লাহ্।
বিঃ দ্রষ্টব্য ঃ-
ফাউন্ডেশন এর বিদ্যাশিক্ষা ও কর্ম শিক্ষা নিজ পদ্ধতিতেই চলবে।বিশদ বিবরণ জানতে “ফাউন্ডেশন এর শিক্ষা পদ্ধতি” হ্যান্ডবিল সংগ্রহ করুন।
নোটঃ- ৪ বছরের কোর্স শেষে,ছাত্রীদের বয়স হবে,১২-১৩-১৪-১৫-১৬ বছর,
অর্থাৎ কোর্স কমপ্লিট হওয়ার পর,জেনারেল শিক্খা অথবা মাওলানা শিক্ষা অর্জন করতে পারবে।

ফাউন্ডেশন এ যা শিখবে এর জন্য ব্যায় কতো হবে ?
১/৩ বার টিফিন ×৩=৯ টাকা×৩০=২৭০/- প্রতিমাস।
২/২ বার ভাত, সব্জী/মাছ/ডিম/মাংস×১৫=৩০×৩০=৯০০/-
৩/টিউশন ফী ২০×৩০=৬০০/-
৪/কারেন্ট বিল ৫×৩০=১৫০/-
৫/কম্পিউটার/মোবাইল টিউশন ফী ১০×৩০=৩০০/-
৬/টেইলার টিউশন ফী ৫×৩০=১৫০/-
২৩৭০/- প্রতিমাস×১২=২৮৪৪০/-
২৮৪৪০/-প্রতিবছর×৪=১১৩৭৬০/-
যেদিন ছাত্রীরা হাফিজাহ্ এ কোরান পরিপুর্ণ হবে,প্রত্যেক এর একাউন্টে ২৫০০০/-টাকা জমা করে দেওয়া হবে,ফাউন্ডেশন এর পক্ষে ।